More

    ঘন-লম্বা-দৃড় চুল পেতে ব্যবহার করুন রসুন

    চুল একজন মানুষের বাহ্যিক সৌন্দর্য বিকশিত করে। চুল ছাড়া নারী কিংবা পুরুষ কারোই সৌন্দর্যে পরিপূর্ণতা আসে না। এমনকি ঘন কালো চুল একজন মানুষকে আত্মবিশ্বাসী হতে সহায়তা করে। কারণ মাথায় যদি চুল না থাকে বা কম থাকে, তবে হীনমন্যতায় ভুগতে হয়। তাছাড়া বয়সের আগেই বয়স্ক দেখায়। তবে সবকিছুরই যত্নের প্রয়োজন হয়। যত্ন ছাড়া কোনো কিছুই সুন্দর হয় না। ঠিক তেমনি চুলের প্রতিও যত্নশীল হতে হয়। নইলে চুলের বিভিন্ন সমস্যায় ভুগতে হয়। অনেকেরই দেখা যায়, কোনোভাবেই মাথার চুল বাড়ছে না। নানান নামীদামী প্রসাধনীও এক্ষেত্রে কাজে দিচ্ছে না। তবে চিন্তার কিছু নেই। কারণ এই সমস্যার সহজ সমাধান রয়েছে আপনার রান্নাঘরেই। ঘন ও লম্বা চুল পেতে ব্যবহার করতে হবে রসুন। কেননা রসুন শুধুমাত্র স্বাস্থ্যে জন্যই উপকারী নয়, পাশাপাশি চুলের জন্যই বেশ কার্যকারী।

    spot_img

    Must Read

    চুল একজন মানুষের বাহ্যিক সৌন্দর্য বিকশিত করে। চুল ছাড়া নারী কিংবা পুরুষ কারোই সৌন্দর্যে পরিপূর্ণতা আসে না। এমনকি ঘন কালো চুল একজন মানুষকে আত্মবিশ্বাসী হতে সহায়তা করে। কারণ মাথায় যদি চুল না থাকে বা কম থাকে, তবে হীনমন্যতায় ভুগতে হয়। তাছাড়া বয়সের আগেই বয়স্ক দেখায়।
    তবে সবকিছুরই যত্নের প্রয়োজন হয়। যত্ন ছাড়া কোনো কিছুই সুন্দর হয় না। ঠিক তেমনি চুলের প্রতিও যত্নশীল হতে হয়। নইলে চুলের বিভিন্ন সমস্যায় ভুগতে হয়। অনেকেরই দেখা যায়, কোনোভাবেই মাথার চুল বাড়ছে না। নানান নামীদামী প্রসাধনীও এক্ষেত্রে কাজে দিচ্ছে না। তবে চিন্তার কিছু নেই। কারণ এই সমস্যার সহজ সমাধান রয়েছে আপনার রান্নাঘরেই। ঘন ও লম্বা চুল পেতে ব্যবহার করতে হবে রসুন। কেননা রসুন শুধুমাত্র স্বাস্থ্যে জন্যই উপকারী নয়, পাশাপাশি চুলের জন্যই বেশ কার্যকারী।

    বিশেষ করে রসুনে থাকা জিঙ্ক এবং ক্যালসিয়াম, চুলের জন্য ভীষণ উপকারী। রসুনের তেল দিয়ে মাথার ত্বকে ম্যাসাজ করলে চুলের গোঁড়া শক্ত হয়। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক চুলের বৃদ্ধির ক্ষেত্রে কীভাবে রসুন ব্যবহার করবেন-

    রসুন এবং আদা

    সম্প্রতি এক গবেষণায় দেখা গেছে যে, আদা মাথার খুশকি দূর করে। চুল ঝরে যাওয়া কমাতে এবং চুল বৃদ্ধিতেও সাহায্য করে। দুই ইঞ্চি আদার টুকরো এবং ৮টি রসুনের কোয়া প্রথমে ভালো করে পিষে নিন। এবার কড়াইয়ে আধা কাপ নারকেল তেল অথবা অলিভ অয়েল নিয়ে গরম করুন এবং তাতে আদা-রসুনের পেস্টটি মিশিয়ে খয়েরি বর্ণ ধারণ করা পর্যন্ত গরম করে নিন। তারপর সেই তেলটি ঠাণ্ডা হলে আলাদা পাত্রে ছেঁকে রাখুন। এই তেলটি দু’চামচ করে নিয়ে ১৫ মিনিট পর্যন্ত মাথা এবং চুলে ভালো করে ম্যাসাজ করুন। তারপর ৩০ মিনিট রেখে দেওয়ার পর, হালকা শ্যাম্পু দিয়ে মাথা ভালো করে ধুয়ে নিন।

    রসুন এবং মধু

    রসুনের সঙ্গে মধুর মিশিয়ে চুলে ব্যবহার করলে চুলের আর্দ্রতা ধরে রাখতে দুর্দান্ত কাজ করে। চুলের বৃদ্ধি হয় এবং চুল উজ্জ্বলও থাকে। এক চামচ মধুর সঙ্গে, এক চামচ রসুনের রস মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করুন। তারপর সেই মিশ্রণটি মাথার ত্বক এবং চুলে ভালো করে লাগিয়ে ২০ মিনিট রাখুন। তারপর হালকা শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুই থেকে তিনবার এটি করতে পারেন।

      চোখ রাঙাচ্ছে তৃতীয় ঢেউ! মেদিনীপুরে জ্বর-শ্বাসকষ্টে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা, চলছে ওষুধের হাহাকার
      লবঙ্গ এর উপকারিতা, হাজারো রোগের একটাই সমাধান

    রসুন এবং রোজমেরি

    রোজমেরি অয়েল চুলের বৃদ্ধির ক্ষেত্রে দুর্দান্ত কাজ করে। এর সঙ্গে নারকেল ও ক্যাস্টর অয়েল এবং রসুনের রস মিশিয়ে মাথায় লাগালে দুর্দান্ত ফল পাবেন। পাঁচ চামচ রসুনের রসের সঙ্গে, আধা চা চামচ রোজমেরি অয়েল মিশিয়ে নিন, তারপর তাতে এক চামচ ক্যাস্টর অয়েল ও এক চামচ নারকেল তেল মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি দিয়ে ১৫ মিনিট মাথা ও চুল ভালো করে ম্যাসাজ করুন। তারপর ৩০ মিনিট রেখে দেওয়ার পর, হালকা শ্যাম্পু দিয়ে ভালো করে মাথা ধুয়ে নিন।

    রসুনের শ্যাম্পু

    পিপারমেন্ট অয়েল চুলের বৃদ্ধির ক্ষেত্রে দুর্দান্ত কাজ করে। এক্ষেত্রে ১৫টি রসুন কোয়া নিয়ে ভালো করে পেস্ট তৈরি করে নিন। তারপর এই পেস্টটি আপনার শ্যাম্পুর বোতলে দিয়ে, তাতে ১০ ফোঁটা পিপারমেন্ট অয়েল দিয়ে মিশিয়ে নিন। তারপর সেই শ্যাম্পুটি ব্যবহার করুন।

    রসুনের তেল

    রসুনের তেল দিয়ে মাথা ম্যাসাজ করলে রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি পায় এবং হেয়ার ফলিকলস উদ্দীপিত করে। এটি চুলের বৃদ্ধিতে বেশ কাজ করে। রসুনের তেল তৈরি করবেন কীভাবে? চলুন জেনে নেয়া যাক নিয়ম-

    ৮টি রসুনের কোয়া এবং একটি মাঝারি আকারের পেঁয়াজ নিয়ে ভালো করে থেঁতো করে নিন। কড়াইয়ে আধা কাপ নারকেল তেল অথবা অলিভ অয়েল নিয়ে গরম করুন এবং তাতে আদা রসুনের পেস্টটি মিশিয়ে দিন। যতক্ষণ না পর্যন্ত পেঁয়াজ-রসুনের পেস্টটি খয়েরি রঙ ধারণ করছে, ততক্ষণ পর্যন্ত তেল গরম করুন। তারপর সেই তেলটি ঠাণ্ডা করে ছেঁকে আলাদা পাত্রে ঢেলে রাখুন। এরপর এই তেলটি দু’চামচ করে নিয়ে ১৫ মিনিট পর্যন্ত মাথা এবং চুলে ম্যাসাজ করুন। ৩০ মিনিট রেখে দেওয়ার পর হালকা শ্যাম্পু দিয়ে মাথা ভালো করে ধুয়ে নিন।

    - Advertisement -

    Latest News

    চর্ম রোগ দাদ থেকে মুক্তির অনবদ্য উপায়

    দাদ একটি চর্মরোগ। অতি পরিচিত একটি ফাঙ্গাল ইনফেকশন বা সংক্রমণ এটি। শরীরের বিভিন্ন স্থানে যেমন- হাত, পা, পিঠ, পায়ের...
    - Advertisement -

    More Articles Like This

    - Advertisement -