আন্তর্জাতিক

ভয়াবহ বিপদ! করোনার কারনে বিশ্বজুড়ে প্রতিদিন ৬ হাজার শিশুর মৃত্যু

আগামী ছয় মাসে বিশ্বজুড়ে প্রতিদিন ছয় হাজার শিশুর মৃত্যু হতে পারে। বুধবার গভীর উদ্বেগের সঙ্গে এমনটাই জানাল ইউনিসেফ। করোনার প্রভাব ও নিয়মিত স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা ভেঙে যাওয়ায় এই ধরনের ঘটনা ঘটতে পারে। এই মৃত্যুর বেশির ভাগই ঘটবে অপেক্ষাকৃত আর্থিকভাবে দুর্বল দেশগুলোতে, যেসব দেশ পরিকাঠামোগত কারণে করোনা মোকাবেলায় খুব বেশি সক্ষম নয়।

ইউনিসেফের একজিকিউটিভ ডিরেক্টর হেনরিয়েট্টা ফোর বলেন, গত কয়েক দিনে আমরা একটা বিষয় লক্ষ্য করছি। গত কয়েক দশকে প্রথম বার পাঁচ বছরের জন্মদিন পেরোনোর আগেই মারা যাচ্ছে বহু শিশু। করোনার কারণে মা শিশু দু’জনেরই মৃত্যু হচ্ছে। আমরা উন্নয়নের দশকে এমন হতে দিতে পারি না।

ইউনিসেফ এই সতর্কতা জারি করছে জন হপকিন্সের স্কুল অব পাবলিক হেলথ-এর একটি গবেষণার ওপর ভিত্তি করেই। দিন কয়েক আগেই বিল গেটস ও মেলিন্ডা গেটসের অনুদান ভিত্তিক এই গবেষণার রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে ল্যানসেট গ্লোবাল হেলথ জার্নালে।

ওই রিপোর্টে দেখানো হয়েছে আগামী ছয় মাসে ১১ লাখ পঞ্চাশ হাজারের বেশি শিশুর মৃত্যু হতে পারে  ছয় মাসে। মৃত্যু হতে পারে অন্তত ৫৬ হাজার ৭০০ জন মায়ের। এমনকি পরিস্থিতি আরো খারাপ হলে অতিরিক্ত দুই লাখ ৫৩ হাজার শিশুর মৃত্যুও হতে পারে বলে অনুমান ইউনিসেফের।

ইউনিসেফের যুক্তরাজ্যের নির্বাহী পরিচালক সাচা ডেশমুখ বলেন, বিশ্বজুড়ে শিশুদের অবস্থা করুণ। তাদের সহায়ত ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। তাদের খেলার বা মন খুলে আনন্দ করার খোলা জায়গা বন্ধ হয়ে গেছে। নিজেদের শিক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। তাদের যে খাবার দেওয়ার এক ব্যবস্থা ছিল; সেটাও ভেঙে পড়েছে। শিশুরা হামের প্রকোপ পড়ার হুমকির মধ্যে রয়েছে। স্কুল বন্ধ হওয়ায় দুর্বল শিশুদের ঝুঁকি বাড়ছে।


Tags
Advertisement with GNE Bangla

একই রকমের খবর

Back to top button
Close