একাধিক ব্যক্তি সংক্রমিত হওয়ায় শালবনিতে ওসিএল কর্মীদের বিক্ষোভ কর্মসূচি

Demonstration of OCL workers in Shalbani as more than one person was infected

শালবনি: গত কয়েকদিনে শালবনির গোদাপিয়াশালে ওসিএল সিমেন্ট কারখানায় প্রায় ১০-১২ জন কর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়ে পড়েছেন। কিন্তু সিমেন্ট কারখানা কর্তৃপক্ষ সংস্পর্শে এসে কর্মীদের কোয়ারেন্টিনে না পাঠিয়ে তাদেরকে নির্দেশ দিয়েছেন কাজে যাওয়ার। ঠিক এমনটাই অভিযোগ এনে এদিন কর্মীরা বিক্ষোভ সমাবেশে হাজির হয়।

তবে শুধু যে এটুকু অভিযোগ তা নয়, সংস্পর্শে আসা কর্মীদের করোনা পরীক্ষা করার ব্যাপারেও কোনোরকম পদক্ষেপ নেয়নি কর্তৃপক্ষ। আবার যে সমস্ত কর্মীরা ছুটির আবেদন জানিয়েছেন তাদেরকে বেতন কেটে দেওয়া বা ছাটাই করে দেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয় কর্তৃপক্ষ তরফে। এই সমস্ত রকম অভিযোগ টেনে আজ শনিবার ওসিএল কোম্পানির প্রধান গেটের সামনে কর্মীরা বিক্ষোভ দেখান।

তবে এই বিক্ষোভ কিছুক্ষণ চলার পর সেই ঘটনাস্থলে শালবনি থানার পুলিশ এসে পৌঁছায়। এরপর কর্মীরা পুলিশের গাড়িকে ঘিরে নিয়ে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। এরপর আইসির উপস্থিতিতে ওসিএল কর্তৃপক্ষ দফায় দফায় কর্মীদের সাথে বৈঠকে বসেন। তারপর দুপুর তিনটে নাগাদ কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে কর্মীরা বিক্ষোভ তুলে নেন।

এদিন এই বিক্ষোভের প্রধান কর্মকর্তা ছিলেন অসিত দাস। এদিন তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি এসে জানান, আগামী তিনদিন কারখানা বন্ধ থাকবে। এছাড়াও আলোচনায় স্থির হয়েছে যে, সংস্পর্শে এসে কর্মীরা ৭ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে পারবে আর এই ১০ দিনের বেতন কাটবেনা কর্তৃপক্ষ। আর কাররখানার মধ্যে সব কর্মীদের সুরক্ষার বিষয়ে নজর রাখবে কর্তৃপক্ষ তরফে।
[qws]Tags:একাধিক ব্যক্তি সংক্রমিত হওয়ায় শালবনিতে ওসিএল কর্মীদের বিক্ষোভ কর্মসূচি

Use GNE Bangla App Install Now
Subscribe YouTube Channel