জেলা

পুজোর মুখে ফসলের ক্ষতি, হাতির অত্যাচারে অতিষ্ঠ বাঁকুড়ার কৃষকরা

বাঁকুড়া: বাঁকুড়া উত্তর বনবিভাগের সোনামুখী রেঞ্জের জঙ্গল লাগোয়া বন পারুলিয়া, মাস্টারডাঙ্গা, বেশিয়া গ্রামের মানুষ বর্তমানে হাতির তাণ্ডবে ক্ষতির শিকারগ্রস্ত। হাতির দল বিঘার পর বিঘা জমির ফসল নষ্ট করে দিচ্ছে প্রায় প্রতিদিন।

এমনকি এই অত্যাচারে ঐ এলাকার মানুষগুলো একেবারে সমস্যার মুখে রয়েছে। উল্লেখ্য কিছুদিন আগে সোনামুখী বনাঞ্চলে ৪০ টি হাতির দল ঢুকে পড়ে। আর তারপর থেকেই তারা সূর্যাস্ত হওয়ার পর থেকেই ধানের জমি দাপিয়ে বেড়ায়। পেকে যাওয়া ধান গুলো নষ্ট করে দিচ্ছে প্রতিদিন।

স্থানীয় বাসিন্দারা অভিযোগ তোলে, হাতি তাড়াতে কোনও সদর্থক ভূমিকা বনদফতর গ্রহণ করেনি। স্থানীয়দের মধ্যে গঙ্গাধর শিকারী, হারাধন চৌধুরী, স্বপন পালরা বলেন, পোকার আক্রমণ থেকে ধানকে কোনোরকম ভাবে রক্ষা করা গেছে।

এখন শুরু হয়েছে হাতির তান্ডব। বনদফতর থেকে কোনোরকম সাহায্য তারা পাচ্ছেন না। হুলাপার্টি তো দূরের কথা, মশাল, তেল, সার্চ লাইট কোনও কিছুই দিয়ে সাহায্য করেনি বনদফতর থেকে।

সোনামুখী বনাঞ্চলের বনাধিকারিক দয়াল চক্রবর্ত্তী হাতির আক্রণে ধান চাষের ক্ষতির কথা স্বীকার করে নিয়ে বলেন, গত ছ’সাত দিন ধরে এলাকায় দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ৩৬ থেকে ৪০ হাতির দল। ইতিপূর্বে আমরা দু’বার অন্যত্র সরিয়ে দিয়েছি। কিন্তু আবার হাতির দলটি এখানেই ফিরে আসছে।

কিন্তু গ্রামবাসীরা এই মন্তব্য একেবারে অস্বীকার করে জানিয়েছেন যে তারা মিথ্যা কথা বলছে। বনদফতর থেকে হাতির দলকে সরানোর কোনো রকম ব্যাবস্থা গ্রহণ করেনি। তবে বনদফতর থেকে আশ্বাস দিয়েছেন ওনারা সাহায্য করলেই আজই হাতির দলটিকে সরিয়ে ফেলবেন। তবে তারা ও জানান ক্ষতিগ্রস্ত মানুষজন সকলেই সরকারি সাহায্য পাবে।

Advertisement with GNE Bangla

একই রকমের খবর

Back to top button
Use GNE Bangla App Install Now
Subscribe YouTube Channel