জাতীয়

করোনা টেস্টের নামে এ কী কান্ড! গোপনাঙ্গ থেকে সোয়াব টেস্ট করতে গিয়ে পাকড়াও অভিযুক্ত

Accused arrested going for swab test

GNE NEWS DESK:করোনা পরীক্ষার জন্য সাধারণত নাক থেকে সোয়াবের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়। কিন্তু এক তরুণীর করোনা পরীক্ষার জন্য তার বিশেষাঙ্গ থেকে নমুনা সংগ্রহ করলেন এক ল্যাব টেকনিশিয়ান। মহারাষ্ট্রের অমরাবতী নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

গত মঙ্গলবারের এ ঘটনায় অভিযুক্ত টেকনিশিয়ানকে গ্রেপ্তার করেছে স্থানীয় পুলিশ। এ ঘটনায় রাজ্যটির মহিলা ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রী যশোমতি ঠাকুর দুঃখ প্রকাশ করেছেন। এ সময় তিনি অভিযুক্ত টেকনিশিয়ানের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপের হুঁশিয়ারিও দেন।

স্থানীয় পুলিশ জানিয়েছে, ভুক্তভোগী অমরাবতী এক শপিং মলে কর্মরত। ২৪ জুলাই সেই শপিং মলের এক কর্মী করোনায় আক্রান্ত হন। তাঁর সংস্পর্শে এসেছিলেন শপিং মলের কর্মীরা। ফলে তড়িঘড়ি করে কভিড পরীক্ষা করতে ছোটেন শপিং মলের ২৫ জন কর্মী। তাঁদের মধ্যে ওই নারীও ছিলেন।

গত মঙ্গলবার অমরাবতীর ওই মলের ২৫ জন স্টাফের নাক থেকে সোয়াব সংগ্রহ করা হয়েছিল। সেই সময় ২৪ বছরের ওই নারীকে আলাদা করে ডেকে, কভিড পরীক্ষার জন্য গোপনাঙ্গ থেকে সোয়াব সংগ্রহ করে অভিযুক্ত। ঘটনায় থানায় অভিযোগ দায়ের করলে মঙ্গলবার রাতেই ল্যাব টেকনিশিয়ানকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ছাড়াও ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা রুজু হয়েছে।

এর আগে কভিড কেয়ার সেন্টারেও করোনায় আক্রান্ত এক নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছিল মুম্বাইয়ে। এবার করোনা পরীক্ষার নামে শ্লীলতাহানি করা হলো। স্বাভাবিকভাবেই একের পর এক এই ঘটনায় মহারাষ্ট্রে নারীদের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

Tags:সোয়াব টেস্ট, করোনা টেস্ট,সোয়াব টেস্ট করতে গিয়ে পাকড়াও অভিযুক্ত


Tags
Advertisement with GNE Bangla

একই রকমের খবর

Back to top button
Use GNE Bangla App Install Now
Subscribe YouTube Channel
Close