জাতীয়শিক্ষা ও স্বাস্থ্য

পূর্ব রেলের বড়সড় ঘোষণা,১ লা ডিসেম্বর থেকে চালু হচ্ছে ভাগীরথী, কোল্ডফিল্ড সহ ৭ খানা ট্রেন

GNE NEWS DESK:এখনও জেলাস্তরে লোকাল ট্রেন পরিষেবা চালু হয়নি শহরতলির লোকাল ট্রেন পরিষেবা চালু হলেও। কিন্তু ক্রমশই বেড়ে চলেছে দিন কে দিন ট্রেনের চাহিদা। আর ঠিক এই পরিস্থিতিতে রেলের আধিকারিকদের ওপরে জেলাগুলিতে লোকাল ট্রেন পরিষেবা চালুর দাবি ওঠার সঙ্গে সঙ্গে ফার্স্ট প্যাসেঞ্জার ও রাজ্যগুলির মধ্যে চলাচল করা ট্রেনগুলি চালু করার জন্য ক্রমশ চাপ বাড়ছিল। যদিও এই করোনা পরিস্থিতিতে রেল ও রাজ্য উভয়কেই একমত হতে হবে এই সব ট্রেন চালু করার জন্য।

রেল ও রাজ্যের মধ্যে এখনও কোনও বৈঠক হয়নি শহরতলির বাইরে লোকাল ট্রেন চালানোর জন্য। আর সেই ট্রেন চালু হবে কবে থেকে তাঁর ও আঁচ মেলেনি। কিন্তু ডিসেম্বর মাস থেকেই তা চালু হতে পারে এমনটাই শোনা যাচ্ছে। তবে আগামী ১ ডিসেম্বর থেকেই চালু হয়ে যাচ্ছে কোল্ডফিল্ড এক্সপ্রেস, ভাগীরথী এক্সপ্রেস ও মুম্বাই মেল সহ মোট ৭টি ট্রেন, ঠিক এমনটাই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত ঘোষিত হওয়ার আগেই এবার পূর্ব রেল জানিয়ে দিল। তবে কোনো ট্রেনে চাপা যাবে না রিজার্ভেশন ছাড়া। একই সঙ্গে যাত্রীদের তার সাথেই বাড়তি ভাড়াও গুণতে হবে।

আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে যে ৭টি ট্রেন চালু করা হচ্ছে তা কিছু নির্দিষ্ট ট্রেনের সময়সারণী, গতিপথ, স্টপেজ ধরে চললেও সেগুলি আদতে স্পেশাল রিজার্ভড ট্রেন হিসাবেই চালানো হবে, মঙ্গলবার রাতে পূর্ব রেল সূত্রে এমনটাই জানানো গিয়েছে।এই স্পেশাল ট্রেনগুলির বুকিং শুরু হয়ে যাবে আগামী ২৬ নভেম্বর থেকেই।

আগামী ১ তারিখ থেকে যে ৭টি ট্রেন চালু হচ্ছে সেসবের মধ্যে থাকছে কোল্ডফিল্ড এক্সপ্রেসের সময় ও রুট ধরে চলা হাওড়া-ধানবাদ স্পেশ্যাল, ভাগীরথী এক্সপ্রেসের রুট ও সময় ধরে চলা শিয়ালদা-লালগোলা স্পেশ্যাল ও মুম্বই মেল ভায়া এলাহাবাদের রুট ধরে চলা হাওড়া-মুম্বই স্পেশ্যাল। আর এর সাথে বাকি যে চারটি ট্রেন থাকছে তা হলো শিয়ালদা-সাহারসা, মালদা টাউন-কিউল, ভাগলপুর-রাঁচি এবং শিয়ালদা-সাহারসা এক্সট্রা স্পেশ্যাল।

প্রতিদিন বিকেল ৫টা ২০মিনিটে হাওড়া থেকে ছেড়ে ওইদিনই রাত ৯টা ৪০মিনিটে ধানবাদে পৌঁছাবে হাওড়া ধানবাদ স্পেশ্যাল ট্রেনটি। আবার ফেরার সময় ওইদিনই সকাল ১০টা ২৫মিনিটে হাওড়ায় পৌঁছাবে পরদিন ভোর ৫টা ৫০মিনিটে ধানবাদ থেকে ছেড়ে। শিয়ালদা থেকে প্রতিদিন সন্ধ্যে ৬টা ২০মিনিটে ছাড়বে আর পৌঁছবে ওইদিনই রাত ১১টায় শিয়ালদা লালগোলা স্পেশ্যাল ট্রেনটি। আর ফেরার সময় পরদিন ভোর ৫টা ৪০মিনিটে ছেড়ে শিয়ালদায় পৌঁছবে সকাল ১০টা ৪০মিনিটে লালগোলা থেকে।

প্রতিদিন রাত ১১টা ৩৫মিনিটে ছেড়ে তৃতীয়দিন দুপুর দেড়টায় মুম্বই সিএসএমটি পৌঁছাবে হাওড়া-মুম্বই সিএসএমটি সুপারফাস্ট ভায়া এলাহাবাদ হাওড়া থেকে। আবার মুম্বই থেকে সেদিন রাত সোয়া ১০টায় ছাড়বে আর হাওড়ায় পৌঁছাবে তৃতীয় দিন সকাল ১১টা ৪০মিনিটে। যাত্রীদের ভিড়ের চাপ কমাতেই এই ৭টি সংরক্ষিত স্পেশাল ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, পূর্ব রেল তরফে এমনটাই জানানো হয়েছে।

Advertisement with GNE Bangla

একই রকমের খবর

Back to top button
Use GNE Bangla App Install Now
Subscribe YouTube Channel